রাগ করেছি আমি

কবি :  কৌস্তভ দত্ত 

বাবা আজ কাজে যায় না অনেক দিন।
আমার আর ভাইয়ের স্কুলও বন্ধ অনেক দিন।
বাদাম গুলো আমি আর ভাই ভাগ করে খেয়েছি, 
ঝাল মটর গুলো আমি একা, খুব ঝাল তো তাই ভাই কে দিই নি ।…

ভাঙা মঞ্চের মঞ্চিনী (অন্তিম পর্ব)

লেখক: দামিনী সেন

ত্রয়োদশ পরিচ্ছদ

দরজার বাইরে টোকার শব্দটা খুব অস্ফূটভাবেই কানে প্রথমে প্রবেশ করে সুচির। একবার, দুবার … তারপর একটা গলার আওয়াজ, “সুচি, সুচি! আসবো?” হঠাৎই এতক্ষণের ঘোরটা কেটে গিয়ে মাথাটা একটু বাস্তবে ফিরে আসে সুচির। ধড়ফড় করে উঠে …

অস্থির নানাবিধ সমস্যা ও প্রতিকার

লেখক: মিজানুর রহমান সেখ

একজন গড়পড়তা প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের কঙ্কালে সাধারণত ২০৬টি অস্থি বা হাড় থাকে। কঙ্কালের গঠন প্রত্যেকের শরীরের সম্পূর্ণ আকার প্রদানে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেয়। হাড় সব জায়গায় সমান মজবুত হয় না, তবে একটি শক্তপোক্ত খাঁচা তৈরি করে এবং …

নায়িকা

কবি: কল্যাণ চক্রবর্তী


দুঃখ ছিল। আনন্দ ছিল।
বনপথের কষ্ট সাধ জাগাতো…
মাদকের কোনো বিকল্প ছিল না।
ঘুমঘোরে লোক দেখানো চুপকর্ম…
হাটে গিয়ে —
মাংস বেচে দিন চলত প্রেমজ সুখে।
মঙ্গলকাব্যের নায়িকা…
মাটির গর্তে আমানি জমিয়ে রা।।।
এটাই জানতাম…


লেখক পরিচিতি: 

সুখের ঘরের চাবিকাঠি

লেখক: মিত্রা হাজরা

অফিসের গাড়ি যখন নামিয়ে দিয়ে গেল যশোধারাকে রাত এগারোটা প্রায় বেজে গেছে। নিশুতি পাড়া, মাঝে মাঝে দু-একটা সাইকেল আরোহী যাচ্ছে বটে, রাস্তার কুকুরটা মুখ তুলে দেখে আবার শুয়ে পড়লো, সে যশোধারাকে চেনে। প্রায়ই দেরি হয় — ফ্ল্যাটের …

ভাঙা মঞ্চের মঞ্চিনী (পর্ব – ৭ )

লেখক: দামিনী সেন

একাদশ পরিচ্ছদ

ঘর ভর্তি হই চই, কলতান, সব থেমে যায় এক লহমায়। হতবাক মুখগুলোর সবক’টি চোখের দৃষ্টি এসে জড়ো হয় একটিমাত্র শ্যামলা, বড় বড় কালো চোখ, মিষ্টি লাবণ্যময়ী মুখের উপর। তার অবাধ্য চুলগুলো যথারীতি এসে পড়েছে সামনে, …

মেঘচিল

কবি: ময়ূখ  হালদার

উড়ন্ত মেঘচিল
আয়নায় তিন-জ পেরেকের দৃষ্টি
ভুরুর ডালে বসে একটা দাঁড়কাক
সকাল থেকে ডেকেই চলেছে
কানে কানে নালিশ জানিয়েছিল যে মেয়েটা তার শরীর মোমবাতির মতো গলে পড়ছে আমার ডান গাল বেয়ে
আর এখন আমার ঠোঁটের ওপর সেই …

পুজোসংখ্যা

লেখক: জুবিন ঘোষ

শারদীয়াতে যেমন উমা তাঁর ছেলেমেয়েদের নিয়ে কৈলাস থেকে মর্তে আসেন, তেমনি লেখকরাও পুত্র-কন্যা স্বরূপ তাঁদের মানস পর্বত থেকে উদ্ভূত গল্প-কবিতা-উপন্যাস নিয়ে শারদীয়াতে নব-নব রূপে আবির্ভূত হন। এটাই সেই মহেন্দ্রক্ষণ যখন লেখকরাও পাঠকদের কাছে পূজিত হন। পুজো সংখ্যা …

স্বরচিত রচনাপাঠ ।। প্রতিযোগিতার ফলাফল

সববাংলায় এক বিশেষ প্রতিযোগিতার আয়োজন করেছিল। নিজের লেখা যে কোন ধরণের রচনাই (কবিতা, গল্প, প্রবন্ধ, রম্যরচনা ইত্যাদি) লেখককে পাঠ করে তার ভিডিও করে পাঠাতে বলা হয়েছিল। আমরা নির্বাচিত ভিডিও আমাদের ইউটিউব থেকে প্রকাশ করেছিলাম। আজ তারই ফলপ্রকাশ।

যেমনটি বলা হয়েছিল, …

ভাঙা মঞ্চের মঞ্চিনী (পর্ব – ৬ )

লেখক: দামিনী সেন

৯ম পরিচ্ছদ

“আপনাদের প্ল্যানটা যে শেষে ব্যুমেরাং হয়ে গেল।” গমগম করে ওঠে অমিতেশের গলা। “কী দরকার ছিল, ওদের পাড়াটাকে জড়ানোর। ওটা তো প্রজেক্টের এলাকার বাইরে।”
মাইতি অ্যান্ড বেরা ইঞ্জিনিয়ারিং কনসালটেকের অফিস’এর তিনতলার কনফারেন্স রুমের একেবারে গোড়াতেই গণেশের …

সাহিত্য ও গণমাধ্যম : সংযোগের দ্বিরালা

লেখক: বর্ণশ্রী বক্সী

সৃষ্টির প্রায় শুরু থেকেই প্রকাশিত কিংবা প্রচ্ছন্নভাবে সাহিত্য মানুষের জীবনে ও চেতনায় অঙ্গাঙ্গী মিশে আছে। সাহিত্য কেবলমাত্র নান্দনিক সৌন্দর্যই উপস্থাপিত করে না, বলা যায় একটা সমাজ ও সময়ের চিহ্নায়ন প্রক্রিয়ায় সাহিত্য কাজ করে স্ট্যাটিস্টিক্সের মতো সূচক বিন্দু …

সমাপ্তি

কবি: নির্মাল্য মণ্ডল

একটি পাখির ডাক ও ভোর

কোলাহলে দিনের পতন শুরু

দূরে শ্মশানে শব, নীরবতা
আগুনের চিৎকার ওড়ে
বিষণ্ণ তুলো আর মহাকালের আস্তানা

তোমার চোখের পাতায় ঘুম
কুহকের রোদ, জুঁইফুল

তবু পাখির ডাক — নদীর স্রোত
ক্ষয়ে যাওয়া প্রত্ন …

সৌরভ বন্দ্যোপাধ্যায়-এর দুটি কবিতা

কবি: সৌরভ বন্দ্যোপাধ্যায়

ইচ্ছেপোশাক, চাঁদ রঙের সন্ধে

যখন একা লাগে
নিজেকে উড়িয়ে দিই
ফুরিয়ে দিই…
আর কখন আমার
কথাজন্ম
টুপ করে গিয়ে বসে পড়ে
তোমার ডিপ ইউয়ের নীচে…
তুমি না-জেনেই ভাসিয়ে দাও সব!

তোমার চুলের ডগায় লেগে থাকা
অল্প-একটু স্বপ্নজল …