স্বাধীনতা তোমায়

কবি: বিকাশ রঞ্জন বর

দীর্ঘ প্রতীক্ষা সংগ্ৰাম আর
কলজে উজাড় করা রক্তে
তোমাকে পেয়েছি স্বাধীনতা।
বুক ভাঙার শব্দে, ফাঁসিকাঠের
ফাঁক গলে তুমি এলে!
তিরঙ্গা পতাকা মুড়ে তোমাকে
সাজিয়ে রেখেছি বুকভরা আশায়–
তোমাকে ছুঁয়ে দেখার খুব লোভ হয়
সুনামীতে ভেসে যাওয়া বিচ্ছিন্ন
দ্বীপের মত জেগে আছে সে ইচ্ছে
আধজাগা চাঁদের মত চেয়ে থাকি
পেটের আগুন জ্বলে ধিকিধিকি
উপোসী ঠোঁটে জোটেনি আমানির ফোঁটা
ব্যাভিচার দুর্নীতির লুকোনো বাঘনখ
প্রতিনিয়ত ঝরিয়ে চলেছে বুকের রক্ত–
জন্মলগ্নে তুমি কথা দিয়েছিলে
বাঁচার মন্ত্রে দেবে মৌলিক অধিকার
আজ সে কথাই তুমি রাখ
জল ঢাল পেটের আগুনে
উলঙ্গ শরীরে একফালি কাপড়
মাথার উপরে দাও ভরসার ছাদ
কথা দিচ্ছি, তোমাকে ছুঁয়ে থাকব
অনন্তকাল, যতদিন দেহে থাকে প্রাণ।


ছবি: কুন্তল


লেখকের কথা: বিকাশ রঞ্জন বর
বিজ্ঞানে স্নাতক বিকাশ বরের ছাত্রাবস্থায় স্কুলপত্রিকা দিয়ে লেখালেখি শুরু। বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় নিয়মিত লেখক। “জাদুকাঠি” নামে শিশু সহিত্য পত্রিকার সহসম্পাদক। বর্তমানে একজন কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মী। বনজঙ্গলে ঘুরে বেড়ানো নেশা।

শেয়ার করে বন্ধুদেরও পড়ার সুযোগ করে দিন
  •  
  •  
  •  
  •  

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।